বৃহস্পতিবার, ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

কলেরার টিকা দেয়া শুরু ২৬ জুন

আইসিডিডিআরবির আলোচনা সভায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক -- চিত্রজগত.কম

গত পাঁচ মাসে দেশে ডায়রিয়া আক্রান্ত হয়েছে প্রায় নয় লাখ মানুষ। রাজধানীর ৫টি এলাকায় এর প্রকোপ বেশি দেখা যাচ্ছে। ডায়রিয়া ও কলেরার এই প্রকোপ কমাতে আগামী ২৬ জুন থেকে কলেরার মুখে খাওয়ার টিকা কার্যক্রম শুরু হবে।

মঙ্গলবার (১৪ জুন) বিকেলে আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র বাংলাদেশের (আইসিডিডিআরবি) আয়োজিত এক আলোচনা সভা শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এমন তথ্য জানান।
এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, এসব এলাকায় ২৬ জুন থেকে খাওয়ানো হবে কলেরার টিকা। এক বছরের বেশি বয়সী যে কেউ নিতে পারবে এ টিকা। এ দিন রাজধানীর দক্ষিণখান থেকে শুরু হবে কার্যক্রম।

চলতি বছরগুলোতেও করোনা মহামারীর মধ্যে বেশ ভুগিয়েছে ডায়রিয়া। সারা দেশেই ছিল প্রকোপ। জানুয়ারি থেকে মে পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে আট লাখ ৮৭ হাজারের বেশি। মারা গেছেন ১৪ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, রাজধানীর যাত্রাবাড়ী, দক্ষিণখান, মোহাম্মদপুর, সবুজবাগ ও মিরপুরে ডায়রিয়া রোগী সবচেয়ে বেশি। তাই ২৬ জুন থেকে ৬ দিন এই পাঁচ এলাকায় কলেরার টিকা খাওয়ানো হবে। ভ্রাম্যমাণসহ টিকাকেন্দ্র থাকছে সাতশো।

এক বছরের বেশি যে কেউ এই টিকা নিতে পারবে। কোন নিবন্ধন লাগবে না, কেন্দ্রে গেলেই নেয়া যাবে। যে টিকাকার্ড দেয়া হবে তা দিয়ে ১০ দিন পর নেয়া যাবে দ্বিতীয় ডোজ।

আইসিডিডিআরবি-র জ্যেষ্ঠ বিজ্ঞানী অধ্যাপক ফেরদৌসী কাদেরী বলেন, টিকা নিলে তা দুই থেকে পাঁচ বছর সুরক্ষা দিবে। বস্তি থেকে শুরু করে সব জায়গায় টিকা দিব আমরা।
রাজধানীর ৫ এলাকায় টিকা পাবেন ২৫ লাখ মানুষ। এই টিকা দিচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

চিত্রজগত/স্বাস্থ্য

সংশ্লিষ্ট সংবাদ